ভিটে – সুপর্ণা ঘোষ

২২টা বছর যারা মেয়েটিকে আগলে রেখে বুকের সবটুকু রক্ত নিংরে বড় করলো, সেই বাবা মা এক দিন হঠাৎ করে হয়ে যায় পর।সমাজ শিখিয়ে দেয় ওটা ওর বাবার বাড়ি, আর অচেনা নতুন মানুষ,সংসার সব নাকি তার নিজের।

এক ছুট্রে মেয়েটির আর মা এর কাছে যাওয়া হয় না,পেরোতে হয় বেশ কয়েকটা অনুমতির দেয়াল।তারপর স্বামী, সন্তান, সংসার এর মাঝে হারিয়ে যেতে সময় লাগেনা।ভুলে যায় তার ছোট থেকে বড় হওয়া পর্যন্ত সব থেকে কাছের মানুষ দুটোকে।

আমরা মেয়েরা সত্যিই বড়ো স্বার্থপর !

“আজ ৮ই মার্চ ২০১৭, বিশ্ব নারী দিবস”

-সুপর্ণা ঘোষ (০৮/০৩/২০১৭)

About Author

“মেঘ বৃষ্টি” আসলে আমার ডাইরির পাতা। কিছুটা কল্পনা, কিছুটা ছেলেমানুষি, কিছুটা অভিমান আর অনেকটাই স্মৃতি। ছোটবেলা থেকেই লিখতে ভালো লাগতো, ভাবতে ভালো লাগতো। ডাইরির পাতায় কত আঁকিবুঁকি, কত কাটাকুটি, কত দুষ্টুমি আছে। যতটা সম্ভব “মেঘ বৃষ্টি” তে তুলে ধরলাম।

Leave A Reply