বাঙালি ভুঁড়ি ভোজ সুক্ত ছাড়া অসমাপ্ত

প্রতিদিন সকালে উঠে আর অফিস থেকে ফেরার সময় একটিই চিন্তা আমার মাথায় ঘুরতে থাকে। আজ কি রান্না করব। তো আজ হঠাৎ ইচ্ছে হলো সুক্ত বানানোর।আমি আগে কখন বানাইনি।চট করে YouTube ঘুরে এলাম।বাড়ি ফেরার পথে সবজি নিলাম করলা,বেগুন,সজনে ডাটা,আলু,আর কাঁচা কলা। বাকি উপকরণ- ঘি, তেজ পাতা,সরষের তেল,লবন, পাঁচফোরঙ, কাঁচালঙ্কা, সরষে আর পোস্ত বাটা আর বড়ি, আমার বাড়িতেই ছিল। প্রতিটা সবজি লম্বা করে কেটে আলাদা আলাদা করে ভেজে ও বড়ি ভেজে তুলে রেখে,কড়াইতে তেল ,তাতে পাঁচফোরঙ,কাঁচালঙ্কা,তেজপাতা দিয়ে সমস্ত ভেজেরাখা সব্জিদিন,উপর থেকে দিন পোস্ত সরষে বাটা,পরিমান মত লবন,চিনি ,আর উষ্ণ গরম জল পরিমান মত। সবজি সেদ্ধ হয়ে এলে জল সামান্য শুকিয়ে ঘি দিন,ব্যাস তৈরি। বাঙালি ভুঁড়ি ভোজ সুক্ত ছাড়া অসমাপ্ত।

★★ Please make a comment using Facebook profile ★★

About Author

“মেঘ বৃষ্টি” আসলে আমার ডাইরির পাতা। কিছুটা কল্পনা, কিছুটা ছেলেমানুষি, কিছুটা অভিমান আর অনেকটাই স্মৃতি। ছোটবেলা থেকেই লিখতে ভালো লাগতো, ভাবতে ভালো লাগতো। ডাইরির পাতায় কত আঁকিবুঁকি, কত কাটাকুটি, কত দুষ্টুমি আছে। যতটা সম্ভব “মেঘ বৃষ্টি” তে তুলে ধরলাম।

Leave A Reply